পদ্মভূষণ প্রাপ্তিতে আনিসুজ্জামানকে সংবর্ধনা

  • Emad Buppy
  • April 7, 2014
  • Comments Off on পদ্মভূষণ প্রাপ্তিতে আনিসুজ্জামানকে সংবর্ধনা
Anisujjaman

Anisujjamanভারতের তৃতীয় সর্বোচ্চ সন্মানসূচক খেতাব পদ্মভূষণ উপাধি পাওয়ায় অধ্যাপক ড. আনিসুজ্জামানকে সংবর্ধনা দিলো এবি ব্র্যাংক ও চন্দ্রাবর্তী একাডেমি।

সোমবার বিকেলে রাজধানীর রূপসী বাংলা হোটেলে তাকে এ সংবর্ধনা দেওয়া হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত। এছাড়া, চন্দ্রাবর্তী একাডেমির নির্বাহী পরিচালক কামরুজ্জামান কাজল, এবি ব্যাংকের প্রেসিডেন্ট ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক শামিম আহমেদ চৌধুরী, কথা সাহিত্যিক সেলিনা হোসেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন এবি ব্যাংকের চেয়ারম্যান এম. ওয়াহিদুল হক।

অর্থমন্ত্রী বলেন, অধ্যাপক আনিসুজ্জামান একজন সন্মানিত ব্যক্তি। তার এ সন্মানের স্বীকৃতি স্বরূপ তিনি দেশের বিভিন্ন পদক পেয়েছেন। কিন্তু দেশ তাকে এখনও সর্বোচ্চ পদকটি দেয়নি। খুব শিগগির তিনি দেশের এ সর্বোচ্চ পদক পাবেন বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

তিনি আরও বলেন, আনিসুজ্জামানের এ পদক প্রাপ্তিতে বিশ্বে আমাদের মুখ উজ্বল হয়েছে, দেশের মুখ উজ্বল হয়েছে।

আনিসুজ্জামান তার প্রতিক্রিয়ায় বলেন, এদেশের একজন নাগরিক হিসেবে আমার যেসব সামাজিক দ্বায়িত্ব ছিল তা পালনের চেষ্টা করেছি। এ দায়িত্ব পালক করতে গিয়ে অনেকের কাছে আমাকে কথা শুনতে হয়েছে। কিন্তু আমার কাছে লেখাপড়া ও শিক্ষাকতা যেমন গুরুত্বপূর্ণ তেমনি আমার সামাজিক দায়িত্ব পালনও সমান গুরুত্বপূর্ণ। আর তাই আমি এ সামাজিক দায়িত্ব পালনের চেষ্টা করছি।

কামরুজ্জামান কাজল বলেন, অধ্যাপক আনিসুজ্জামান আমাদের খুব কাছের মানুষ। আমাদের সুখে-দুখে সব সময় তাকে পাশে পাই। তার এ পুরস্কার প্রাপ্তিতে আমরা খুবই খুশি। চন্দ্রাবর্তী একাডেমি এমন একটি সংবর্ধনার আয়োজন করতে পেরে গর্বিত বলে জানান তিনি।

সেলিনা হোসেন বলেন, একজন মানুষ যখন নিজেকে ছাড়িয়ে যায় তখন তাকে অবহেলা করা সম্ভব হয় না। তেমনই একজন মানুষ অধ্যাপক ড. আনিসুজ্জামান। স্বাধীনতা পরবর্তী বাংলা সাহিত্যকে সমৃদ্ধ করতে তার অবদান অনস্বীকার্য বলে তিনি উল্লেখ করেন।

উল্লেখ্য, ৩১ মার্চ ভারত সরকার ২৫ জনকে পদ্মভূষণ উপাধিতে ভূষিত করে। এর মধ্যে ভারতীয় আছেন ২২ জন, আমেরিকান ২ জন এবং বাংলাদেশের প্রথম কোনো ব্যাক্তি হিসেবে আছেন ড. আনিসুজ্জামান।

এসএই/