ফ্রি রিসাইক্লিংয়ের অফার দিচ্ছে অ্যাপল

  • sahin rahman
  • April 22, 2014
  • Comments Off on ফ্রি রিসাইক্লিংয়ের অফার দিচ্ছে অ্যাপল

apple-computersকম্পিউটার থেকে কোনো ফাইল পুরোপুরি মুছে ফেলা অতটা সহজ নয়, ডিলিট বাটন চেপে সবকিছু মুছলেও তা রিসাইকেল বিনে জমা হয়। সেটা পরিস্কার করলেও  হার্ডিস্ক থেকে তা পুরোপুরি মুছে ফেলা সম্ভব হয় না। ফলে দিন দিন কম্পিউটার ভারি হয়ে স্পিড হতে থাকে ধীর। এক সময় অকেজো হয়ে পড়ে।

এই সব ঝামেলা থেকে মুক্তির বার্তা শোনালো স্টিভ জবসের প্রযুক্তি কোম্পানি অ্যাপল ইন করপোরেশন। কোম্পানিটি বলছে, যারা অ্যাপলের কম্পিউটার বা অন্যান্য ডিভাইস ব্যবহার করছেন তাদের জন্য এসব অকেজো পণ্যের রিসাইকেল সুবিধাটা ফ্রি দেবে প্রতিষ্ঠানটি।

মঙ্গলবার অ্যাপলের একজন মুখপাত্র লিসা জ্যাকসন জানান, অ্যাপলের  প্রত্যেক বিক্রেতা এখন থেকেই তাদের পণ্যেগুলোতে এই সুবিধা নিয়ে রিসাইকেল করে নিতে পারবেন। তিনি বলেন, ‘আমরা বিশ্বাস করি আমাদের পণ্য রক্ষার দায়িত্ব আমাদেরই। উৎপাদন থেকে শুরু করে বিক্রির পরেও পণ্যটির দেখাশুনার ভার আমাদের নিজেদেরই’।

এর আগে আইফোন ও আইপড বিনিময় কার্যক্রম চালু করে মার্কিন প্রযুক্তি কোম্পানি অ্যাপল। সে সময় কোম্পানিটির পক্ষ থেকে জানানো হয়, এ কার্যক্রমের মাধ্যমে গ্রাহকরা তাদের পুরনোটি জমা দিয়ে অর্থের বিনিময়ে নতুন আইফোন ও আইপড কিনতে পারবেন।

মঙ্গলবার ৩নিউজ ডট কোর এক প্রতিবেদনে বলা হয়, বৈদ্যুতিক যন্ত্রে থাকে কিছু ক্ষতিকর উপাদান। আর এইসব ক্ষতিকর উপাদানগুলো কম্পিউটারের ফাইলকে নষ্ট করে দেয় । ফলে কম্পিউটার দিন দিন অকেজো হয়ে পড়ে। ২০০৭ সাল থেকে ২০১০ সালের মধ্যে ৩ হাজার টন বৈদ্যুতিক আবর্জনা রিসাইকেল করেছে বলে জানিয়েছে অ্যাপল।

এদিকে অ্যাপলের এমন কর্মসূচিকে স্বাগত জানিয়েছে গ্রিণপিস নামে একটি সংস্থা। তারা বলছে, শুরু থেকেই কোম্পানিটি অনেকটা উদ্ভাবণী । তাছাড়া পরিবেশের ব্যাপারেও সচেতন। অ্যাপলের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ২০০৮ সাল থেকে তারা তাদের ডিভাইসগুলোতে ৫৭ শতাংশ বিদ্যুত খরচ কমিয়েছে। বিশেষ করে আইম্যাক ভার্সনটি বিদ্যুত খরচের হার অনেক বেশি  কমিয়েছে বলে জানায় অ্যাপল।

এস  রহমান/